About Me

header ads

পুলিশ-সিটুর খণ্ডযুদ্ধে উত্তাল হয়ে উঠল রাজধানী!

ডেস্কও ওয়েব ডেস্কঃ পুলিশ-সিটুর খণ্ডযুদ্ধে উত্তাল হয়ে উঠল আগরতলা। বিদ্যুৎ-এর বেসরকারিকরণ সহ এগারো দফা দাবি নিয়ে সিটুর প্রতিনিধিদল যে বিক্ষোভ দেখাচ্ছিল সেখানেই লাঠিচার্জ করে ত্রিপুরা পুলিশ। বাম সমর্থকদের ছত্রভঙ্গ করে জল কামানও চালনা করা হয়।

ত্রিপুরার প্রধান বিরোধী দল সিপিআইএম এর ট্রেড ইউনিয়ন সিটু-র প্রচুর সদস্য ১১ দফা দাবি নিয়ে আজ আগরতলায় বিক্ষোভ দেখায়। সকাল ১১ টা নাগাদ সিটুর প্রেসিডেন্ট তথা প্রাক্তন মন্ত্রী মানিক দে এবং প্রাক্তন সাংসদ শংকর প্রসাদ দত্তর নেতৃত্বে প্রচুর সিটু কর্মী-সমর্থক আগরতলা শহরের মধ্যে দিয়ে আরএমএস চৌমুহানিতে পৌছয়।

সেইখানেই পুলিশের বিশাল বাহিনী সিটুর মিছিল প্রতিরোধ করে। এরপরেই পুলিশ-সিটু সমর্থকদের মধ্যে বিরোধ শুরু হয়। বাম সমর্থকদের উপর লাঠিচার্জ করে পুলিশবাহিনী। জলকামান ছুঁড়ে সিটু কর্মীদের ছত্রভঙ্গ করতে উদ্যত হয়।

পুলিশের এই ব্যবহারের তীব্র সমালোচনা করেন সিটু প্রেসিডেন্ট মানিক দে। তিনি বলেন, বিজেপি সরকারের পুলিশ বিরোধীদের প্রতিটি কাজে এইভাবেই বিঘ্ন ঘটায়। কিন্তু বিজেপি সরকারের এই নীতি বেশিদিন চলবে না। সরকারের বিরুদ্ধে মানুষ গর্জে উঠবে।

মানিক দে আরও বলেন, ত্রিপুরা শ্রম দফতরে তাদের মিছিল করে যাওয়ার কর্মসূচী পুলিশ বানচাল করে দেয়। সিটু-র ১১ দফা দাবির মধ্যে এনডিএ সরকারের শ্রমিক বিরোধী নীতির সমালোচনা করা হয়। শ্রমিক স্বার্থে অবিলম্বে সেগুলি প্রত্যাহারের দাবি জানানো হয়। 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য