About Me

header ads

মাছ ধরতে গিয়ে সংঘর্ষের জেরে মৃত্যু এক, গ্রেফতার ৩!


ডেস্কও ওয়েব ডেস্কঃ উত্তর জেলার ধর্মনগর মহাকুমাধীন পূর্ব ফুলবাড়ি ৬ নং ওয়ার্ডের ঘটে যাওয়া হত্যাকাণ্ডের পরিপ্রেক্ষিতে আজ চুড়াইবাড়ি থানার পুলিশ অভিযান চালিয়ে ফুলবাড়ী এলাকা থেকে তিন অভিযুক্তকে গ্রেফতার করছে। ধৃতরা হল মজির উদ্দিন, হায়াতুন নেছা এবং আব্বাস উদ্দিন। আজ ধৃতদের আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ। প্রসঙ্গত ৩১ আগস্ট মাছ ধরতে গিয়ে দুই পরিবারের মধ্যে সংঘর্ষ বাধে।
পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, চুড়াইবাড়ি থানা এলাকার পূর্ব ফুলবাড়ি গ্রামের ৬নং ওয়ার্ডের বাসিন্দা আব্দুল নূরের চোদ্দ বছরের ছেলে সুজেল হোসেন তাদের বাড়ির পাশের জমিতে মাছ ধরতে গিয়েছিল। আর তখন তাদেরই প্রতিবেশী মজির উদ্দিন(৪৪) তাকে মাছ ধরতে বাধা দেয় এবং মারধোর করে।
সুজেলের চিৎকারে বাড়ি থেকে তার বাবা আব্দুল নুর এবং মা শুকুরজান বিবি সেখানে দৌড়ে গেলে তাদের ওপরও হামলা চালায় আক্রমণকারী মজির উদ্দিন। তাতে দু'পক্ষের মধ্যে চরম সংঘর্ষ বাধে। এতে ঘটনাস্থলেই আহত হয়েছিল আব্দুল নুর(৪৫) রেশমা বেগম(১০) নুরুল হক(৩৮) সুজেল হোসেন (১৪) এবং শুক্কুরজান বিবি(৩৫)। আহতরা প্রত্যেকেই একই পরিবারের লোক। চিকিৎসাধীন অবস্থায় গুরুতর আহত নুরুল হক জিবি হাসপাতাল শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। তারই পরিপ্রেক্ষিতে চুড়াইবাড়ি থানায় মামলা করেছিল আহতের পরিবার।
সেই মতো পুলিশ একটি মামলা নিয়ে কাল ০১লা সেপ্টেম্বর, মূল তিন অভিযুক্তকে আটক করেছে। বাকি অভিযুক্তরা পলাতক। অন্যান্য গুরুতর আহতদের জেলা হাসপাতালেই চিকিৎসা চলছে। আহতদের পরিবারের অভিযোগ ঘটনায় পর পূর্ব ফুলবাড়ি পঞ্চায়েতের প্রধান রেহানা বেগম ঘটনাস্থলে যাননি এবং উল্টে বিরূপ মন্তব্য করেন।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য