About Me

header ads

উত্তর জেলায় বাইক চুরির ঘটনায় চাঞ্চল্য!


ডেস্কও ওয়েব ডেস্কঃ আবারো দিন দুপুরে ধর্মনগর শহর থেকে বাইক চুরির ঘটনায় চাঞ্চল্য ছড়াল। বাইক চুরির ঘটনায় নাজেহাল উত্তর জেলাবাসী। চুরাইবাড়ি ও কদমতলা থানা এলাকা থেকে প্রায় ১০ থেকে ১৫ টি বাইক চুরি হয়েছে বিগত কয়েক মাসের মধ্যে। তাছাড়াও ধর্মনগরের বিভিন্ন এলাকা থেকে বাইক চুরির ঘটনা নতুন কোন বিষয় নয়।
এই চোর চক্রের মূল পান্ডারা আসামে পালিয়ে থাকলেও ত্রিপুরা রাজ্যের উঠতি বয়সের যুবকরা তাদের সাথে যুক্ত। বাইক চুরি উঠতি বয়সের যুবকদের পেশা না হলেও নেশা সামগ্রী ক্রয় করার জন্য তারা বাইক চুরির সাথে যুক্ত হয়ে পড়েছে। তা ফের একবার প্রমাণিত হল।
রবিবার দিন দুপুরে ধর্মনগর শহরের নয়াপাড়া থেকে TR-05A-1877 নাম্বারের একটি পালসার বাইক চুরি করে আসামে নিয়ে যাওয়ার সময় সাধারন মানুষ ও পুলিশের ধাওয়া খেয়ে আসামে ধরা পড়ে দুই সন্দেহভাজন বাইক চোর। সাধারন মানুষ ও পুলিশের ধাওয়া খেয়ে বাইক থেকে ছিটকে পড়ে আরও এক সন্দেহভাজন চোর।
ধর্মনগর থেকে কদমতলা হয়ে দুবাগ রোড ধরে আসামে পালিয়ে যাওয়ার সময় সোনাখিরা নাকা পয়েন্টে আসাম পুলিশ তাদের আটক করে। ধৃতদের মধ্যে এক জন নাবালক বলে জানা গেছে। ধৃতদের মধ্যে এক জনের বাড়ি দক্ষিণ কদমতলা এবং বাকি দুই জনের বাড়ি চুড়াইবাড়ি এলাকায়। আসাম পুলিশ পরবর্তী সময় ধৃতদের ধর্মনগর থানার পুলিশের হাতে তুলে দেয়। বর্তমানে তারা ধর্মনগর থানার পুলিশের হেফাজতে রয়েছে। সোমবার তাদের আদালতে সোপর্দ করা হবে বলে জানা গেছে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য