About Me

header ads

করোনা রোগ সারানোর দাবি থেকে সরে দাড়াল রামদেবের পতঞ্জলি!


ডেস্কও ওয়েব ডেস্কঃ  তাদের তৈরি করোনিল ওষুধটি করোনা সারাতে পারে, এমন দাবি কখনওই করা হয়নি বলে জানাল যোগগুরু রামদেবের সংস্থা পতঞ্জলি। সংস্থার সিইও আচার্য বালকৃষ্ণ আজ বলেন, ‘‘আমরা কখনওই বলিনি এই ওষুধটি করোনা সারাতে বা নিয়ন্ত্রণ করতে পারে। বলেছিলাম, আমরা ওষুধ তৈরি করে পরীক্ষামূলক প্রয়োগ করেছি। তাতে করোনা রোগীরা সেরে উঠেছেন। এতে কোনও জটিলতা নেই।’’
গত সপ্তাহে পতঞ্জলি জানায়, করোনিল শ্বাসরি নামে দুটি ওষুধ বাজারে ছেড়েছে তারা এবং এই ওষুধ ৭ দিনে করোনা সারাতে ১০০ শতাংশ সফল। এই দাবির পরে পতঞ্জলিকে নোটিস পাঠিয়ে ওষুধের উপাদান ও পরীক্ষামূলক প্রয়োগ সংক্রান্ত তথ্য তলব করে আয়ুষ মন্ত্রক। আজ বালকৃষ্ণ বলেন, ‘‘আমরা উন্নত পর্যায়ে তুলসী, গিলয় এবং অশ্বগন্ধার মেলবন্ধন ঘটিয়েছিলাম। কোভিড-১৯ রোগীদের উপরে পরীক্ষামূলক প্রয়োগ করার পরে তাঁরা সেরে উঠেছেন। মন্ত্রক যদি আবার ওই পরীক্ষামূলক প্রয়োগ করতে বলে, আমরা তৈরি।’’
দেশে মোট সংক্রমিতের সংখ্যা এখন ৫.৬৬ লক্ষের বেশি। মৃত ১৬,৮৯৩ জন। আজ নিয়ে পরপর ৭ দিন নতুন আক্রান্তের সংখ্যা ১৫ হাজারের বেশি রইল। গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত হয়েছেন ১৮,৫২২ জন, মারা গিয়েছেন ৪১৮ জন। আনলক-১ পর্বে যে ভাবে হুহু করে রোগী বেড়েছে, তালা খোলার দ্বিতীয় পর্বে তা আরও গতি পাবে কি না, সেই আশঙ্কা অনেকেরই। ৬৬ শতাংশ সংক্রমণ পাওয়া গিয়েছে শুধু জুনে। আজ জাতির উদ্দেশে বক্তৃতায় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী আক্ষেপ করে বলেন, ‘‘আনলক-১ থেকেই ব্যক্তিগত ও সামাজিক আচরণে গা-ছাড়া মনোভাব দেখা দিচ্ছে। আগে আমরা মাস্ক পরা, হাত ধোয়া, পারস্পরিক দূরত্ব নিয়ে অনেক সচেতন ছিলাম।’’
স্বাস্থ্য মন্ত্রক জানিয়েছে, দেশে অ্যাক্টিভ রোগী এখন ২,১৫,১২৫ জন। সুস্থের সংখ্যা ৩,৩৪,৮২১ জন। আরোগ্যের হার বেড়ে ৫৯.০৭ শতাশ। মোদীও দাবি করেন, লকডাউনের ফলে অন্যান্য দেশের থেকে ভাল অবস্থায় রয়েছে ভারত। রাজ্যগুলির মধ্যে মোট রোগীর সংখ্যার নিরিখে দিল্লিকে টপকে আজ আবার দুনম্বরে তামিলনাড়ু। দক্ষিণী রাজ্যে গত কাল থেকে ৪ হাজারেরও বেশি নতুন সংক্রমণ ধরা পড়েছে। মহারাষ্ট্রে সেই সংখ্যাটা ৫২০০-র বেশি। এক দিনে ১১০০-র বেশি সংক্রমণে অন্ধ্র-হরিয়ানাকে ছাপিয়ে গিয়েছে কর্নাটক। সরকারি সূত্রের দাবি, এখন রোজ ২ লক্ষেরও বেশি নমুনা পরীক্ষা হচ্ছে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য