About Me

header ads

বৃহস্পতিবার রাজ্যে আসছে কেন্দ্রীয় প্রতিনিধি দল!


ডেস্কও ওয়েব ডেস্কঃ কেন্দ্রীয় সরকারের স্বাস্থ্য মন্ত্রকের কাছে রাজ্যের করোনা আক্রান্ত বিএসএফ জওয়ানদের উৎসের সন্ধান ও ব্যবস্থাপনা খতিয়ে দেখতে NCDC-র একটি দল রাজ্যে পাঠানোর জন্য চিঠি দেওয়া হয়েছিল। স্বাস্থ্য মন্ত্রক এই ক্ষেত্রে অনুমোদন দিয়েছে।
বৃহস্পতিবার তিন সদস্যক কেন্দ্রীয় দল রাজ্যে আসবে। এই দলের নেতৃত্বে থাকবেন নিগ্রিমস হাসপাতালের অধ্যাপক তথা কমিউনিটি মেডিসিনের এইচ.ও.ডি ডাক্তার জি.কে মেধি। রাজ্যে এসে তারা স্বাস্থ্য সচিবের সঙ্গেও বৈঠক করবেন। বিকালে দিল্লির সাথে ভিডিও কনফারেন্সের সাথে কথা বলবেন তারা। একই সঙ্গে তারা করোনা আক্রান্ত এলাকা গুলিও ঘুরে দেখবেন বলে জানান মন্ত্রী রতন লাল নাথ।
করোনা আক্রান্ত বি.এস.এফ জওয়ান ও পরিবারের সদস্যদের মধ্যে ১৪ জনকে বুধবার সুস্থ হয়ে যাওয়ার পর জিবি হাঁসপাতাল থেকে ছেড়ে দেওয়া হয়। তারা হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকবেন। এখনো পর্যন্ত মোট ১৬ জনকে জিবি থেকে ছাড়া হয়েছে। মহাকরণে সাংবাদিক সম্মেলন করে এই তথ্য তুলে ধরেন আইন মন্ত্রী রতন লাল নাথ।
তিনি আরও জানান রাজ্যে মোট পর্যবেক্ষণে রয়েছে ১৪ হাজার ৭৬৮ জন। ১৪ দিনের সময়সীমা অতিক্রান্ত করেছে ১১ হাজার ৯৯৭ জন। প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে রয়েছে ২২১ জন। হোম কোয়ারেন্টাইনে রয়েছে ২ হাজার ৫৫৫ জন। নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে ১১ হাজার ৭৩৩ জনের। নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ১১ হাজার ১৪৬ জনের। পজেটিভ এসেছে ১৫৫ জনের। নেগেটিভ এসেছে ১০ হাজার ৯৯১ জনের। সুস্থ হয়েছে ১৬ জন। চিকিৎসারত রয়েছে ১৩৭ জন। এইদিন চোরাইবাড়ি দিয়ে রাজ্যে প্রবেশ করে ৩১০ জন। তার মধ্যে ট্র্যাক চালক রয়েছে ৫৪ জন। রোগী রয়েছে ৩১ জন। ২২৫ জন রয়েছে সাধারন নাগরিক। ৫৮ টি গাড়ি এইদিন রাজ্যে প্রবেশ করেছে। হটস্পট এলাকা থেকে এসেছে ২০ টি গাড়ি। ধলাই থেকে বুধবার নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে ৬৪ জনের। বৃহস্পতিবার আরও ১৩ জনকে জিবি হাঁসপাতাল থেকে ছেড়ে দেওয়া হবে বলে মহাকরণে সাংবাদিক সম্মেলন করে জানান মন্ত্রী রতন লাল নাথ।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য