About Me

header ads

বাংলাদেশের সাথে আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্য চালু করা নিয়ে জটিলতা কৈলাশহরের !


ডেস্কও ওয়েব ডেস্কঃ বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে কৈলাশহরের মনু ল্যান্ড কাস্টম দিয়ে আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্য বন্ধ রাখার দাবিতে স্থানীয়দের সড়ক অবরোধের আন্দোলন দ্বিতীয় দিন অর্থাৎ মঙ্গলবারও অব্যাহত রতেছে। কৈলাশহর মহকুমা ও জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে স্থানীয়দের সাথে কয়েক দফায় আলোচনা করেও কোন ধরনের সমাধান সূত্র বের হয়নি। এই সড়ক অবরোধ মূলত একটি নির্দিষ্ট এলাকায় হলেও গোটা কৈলাশহরবাসি সমর্থনে করছে। বর্তমানে পার্শ্ববর্তী রাষ্ট্র বাংলাদেশে করোনা ভাইরাস মহামারির রুপ ধারন করেছে। এই পরিস্থিতিতে আমদানি রপ্তানি বাণিজ্য শুরু করা হলে কৈলাসহরেও করোনার সংক্রমণ ঘটতে পারে বলে দাবি স্থানীয়দের।  তাই তারা এই সময়ের মধ্যে আমদানি রপ্তানি বাণিজ্য বন্ধ রাখার দাবি জানায়। এই বিষয়ে কৈলাসহর আমদানি-রপ্তানি এসোসিয়েশনের সভাপতি গৌরা চাঁদ অধিকারীকে প্রশ্ন করা হলে তিনি জানান আগে যেই ভাবে আমদানি রপ্তানি বাণিজ্য করা হতো। বর্তমানে সেই ভাবে আমদানি রপ্তানি বাণিজ্য করা হবে না। প্রশাসনের নির্দেশিকা মেনে সবকিছু করা হবে। কিন্তু কৈলাসহরের একাংশ মানুষ এই বিষয়টি বুঝতে চাইছে না।
করোনা পরিস্থিতিতে দেশ রাজ্যের অর্থনীতির কথা চিন্তা ভাবন করে আমদানি রপ্তানি বাণিজ্য চালু করার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছে সরকার। অবশ্যই তা ভালো সিদ্ধান্ত। কিন্তু কৈলাসহরের মনু ল্যান্ড কাস্টম দিয়ে আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্য চালু করা হলে সমগ্র কৈলাসহর বাসীর সমস্যা হতে পারে বলে অভিমত কৈলাসহরের বিধায়ক মবস্বর আলীর। তাই তিনি রাজ্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানান প্রয়োজনীয় সুরক্ষার ব্যবস্থা করে যেন আমদানি রপ্তানি বাণিজ্য চালু করা হয়। পাশাপাশি তিনি আমদানি রপ্তানি বাণিজ্যের সাথে যারা যুক্ত তাদের উদ্দেশ্যে আহ্বান জানান আরও কিছু দিন যেন তারা আমদানি রপ্তানি বাণিজ্য বন্ধ রাখে।
এইদিকে ঊনকোটি জেলা কংগ্রেস সভাপতি মহম্মদ বদরুজ্জামান জানান বিষয়টি কেন্দ্রীয় সরকারের সিদ্ধান্ত। সে ক্ষেত্রে এই ব্যবসা শুরু হলে কিছু শ্রমজীবী মানুষ ও ব্যবসায়ীরা উপকৃত হবেন। দেশের অর্থনীতি চাঙ্গা হবে।  কিন্তু এই আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্য চালুর ক্ষেত্রে যে ধরনের স্বাস্থ্যবিধি বা পরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে যে ধরনের সুরক্ষা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে তা নিয়ে প্রথমে এলাকাবাসী ও কৈলাশহর কে অবগত করে তারপর  ব্যবসা শুরু করার পরিকল্পনা নিলে ভালো হতো। তাই তিনি আগে মানুষকে সচেতন করার জন্য জেলা প্রশাসনের প্রতি আহ্বান জানান।
কৈলাশহরের মনু ল্যান্ড কাস্টম দিয়ে আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্য আরও এক মাসের জন্য বন্ধ রাখার দাবি জানিয়েছে কৈলাসহর উন্নয়ন মঞ্চ। কৈলাশহর উন্নয়ন মঞ্চের পক্ষ থেকে ভাস্কর ঘোষ অধিকারী জানান মঙ্গলবার বিষয়টি নিয়ে কৈলাসহর উন্নয়ন মঞ্চের সদস্যরা ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে কথা বলবে। তারপর তারা গণতান্ত্রিক পদ্ধতিতে প্রশাসনের নিকট দাবি জানাবে আরও কিছুদিন কৈলাশহরের মনু ল্যান্ড কাস্টম দিয়ে আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্য বন্ধ রাখার জন্য।
মনু ল্যান্ড কাস্টম কৈলাশহর পৌর পরিষদ এলাকায় অবস্থিত। তাই কৈলাশহর পৌর পরিষদের পক্ষ থেকেও সাধারণ মানুষের মতামতকে সম্মান জানিয়ে জেলা শাসকের কাছে আপাতত আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্য বন্ধ রাখার জন্য আবেদন জানানো হয়। কৈলাশহর পৌর পরিষদের ভাইস চেয়ারপার্সন নীতিশ দে জানান এই আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্য বন্ধের ব্যাপারে কৈলাশহর পুরো পরিষদের পক্ষ থেকে জেলা শাসকের নিকট লিখিত আবেদন জমা দেওয়া হয়েছে এটা সরকারের বিরুদ্ধাচারণ নয়। শুধু মাত্র কৈলাসহর বাসীর কথা মাথায় রেখে আপাতত আমদানি রপ্তানি বাণিজ্য বন্ধ রাখার দাবি জানানো হয়েছে।
কৈলাশহরের মনু ল্যান্ড কাস্টম দিয়ে আমদানি-রপ্তানি বাণিজ্য চালু করাকে নিয়ে যে জটিলতা বর্তমানে সৃষ্টি হয়েছে, তা সৃষ্টি হতো না। যদি আগে থেকে স্থানীয়দের সাথে আলোচনা করে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হতো। এমনই অভিমত অভিজ্ঞ মহলের। এখন দেখার স্রকারর কি সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য