About Me

header ads

আমেরিকার মতো বড়সড় আর্থিক প্যাকেজ চাই ভারতেরঃ অভিজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায়


ডেস্কও ওয়েব ডেস্কঃ ভারতের উচিত আমেরিকার থেকে কাজের ধরণ সম্পর্কে অবগত হওয়া এবং জনগণের হাতে অর্থ দিয়ে দেশের অর্থনীতিকে চাঙ্গা করা, মঙ্গলবার এমনটাই জানিয়েছেন নোবেলজয়ী অর্থনীতিবিদ অভিজিৎ বিনায়ক বন্দ্যোপাধ্যায়। লকডাউন পরবর্তীতে অর্থনীতিকে ঘুরে দাঁড় করাতে ভারতের বড়সড় আর্থিক প্যাকেজ ঘোষণার দরকার বলেও জানান নোবেলজয়ী।
করোনা পরিস্থিতিতে দেশের গভীর অর্থনৈতিক সংকট প্রসঙ্গে ভিডিও কনফারেন্সে কংগ্রেস সাংসদ রাহুল গান্ধীকে এই পরামর্শ দেন অভিজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায়। প্রখ্যাত অর্থনীতিবিদ বলেন, আমরা কোনও বৃহৎ প্যাকেজের কথা বলছি না। যা জিডিপি আছে তার ১ শতাংশ হলেই যথেষ্ট। আমেরিকা সেখানে ১০ শতাংশ জিডিপি নিয়ে চিন্তাভাবনা করছে। তিনি এও বলেন যে, আমরা একটি কাজ করি যা অত্যন্ত বুদ্ধিমান চিন্তাভাবনা হতে পারে তা হল সকল দেনা পরিশোধ স্থগিত রাখা। আমরা কিন্তু এর থেকে আরও বেশি কিছুও করতে পারি। সরকার আপাতত এই সবের দায়িত্ব গ্রহণ করুক।
তবে দেশের জনগণের হাতে অর্থ দিলেই কী সমস্যার সমাধান হবে? রাহুল গান্ধীর এই প্রশ্নের উত্তরে অভিজিৎ বন্দ্যোপাধ্যায় বলেন যে সরকারের লক্ষ্যে থাকা উচিত দরিদ্র মানুষরা। তিনি বলেন, এই মুহুর্তে অর্থনৈতিক পরিকাঠামোর সবচেয়ে নীচের স্তরে যারা রয়েছে সেই ৬০ শতাংশ মানুষের হাতে অর্থ দেয়া হোক। আমার যতদূর চিন্তাভাবনা সেক্ষেত্রে এই পদক্ষেপ খারাপ হতে পারে না। হ্যাঁ অনেকের হয়তো প্রয়োজন থাকবে না। না থাকুক। তখন তাঁরা সেটা খরচ করবে। এটাই অর্থনীতিকে ঘুরে দাঁড়ানোর ক্ষেত্রে সহায়তা করবে।
উল্লেখ্য, গত সপ্তাহেই করোনভাইরাস প্রেক্ষাপট এবং অর্থনৈতিক প্রভাব সম্পর্কে ভারতের রিজার্ভ ব্যাঙ্কের প্রাক্তন গভর্নর রঘুরাম রাজনের সঙ্গে আলোচনা করেন রাহুল গান্ধী। সেই আলোচনায় রঘুরাম রাজনও বলেন, করোনা সঙ্কটের কারণে ক্ষতিগ্রস্থ দরিদ্রদের সহায়তার জন্য ৬৫০০০ কোটি টাকা ব্যয় করা উচিত সরকারের।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য