About Me

header ads

সাফাই কর্মীর উপর আক্রমণের ঘটনার জেরে সাফাই কর্মীদের মধ্যে ক্ষোভ; থানায় মামলা!


ডেস্কও ওয়েব ডেস্কঃ ভাটি অভয়নগর এলাকায় এক সাফাই কর্মীর উপর আক্রমণের ঘটনার জেরে সাফাই কর্মীদের মধ্যে ক্ষোভের বহিঃ প্রকাশ ঘটে। এই ঘটনায় রামনগর ফাঁড়িতে মামলা দায়ের করে অভিযুক্তের বিরুদ্ধে।
ঘটনা মঙ্গলবার সকালে রাজধানীর ভাটি অভয়নগর এলাকায়। জানা যায় এদিন আগরতলা পুর নিগমের ১৩নং ওয়ার্ডের সাফাই কর্মীরা এলাকার ড্রেইন সাফাই করছিল। সেই সময় এক সাফাই কর্মী রাস্তার পাশে ড্রেনে মুত্রত্যাগ করে। বর্তমানে রাস্তার পাশে মল মুত্র ত্যাগ করা এবং জত্রতত্র থুতু ফেলা আইননত অপরাধ। বিষয়টি এক লক্ষ্য করেন CWC-র ইঞ্জিনিয়ার বিহারের বাসিন্দা অমৃত পাত্র। তিনি সাফাই কর্মী গণেশ দাসের সঙ্গে বচসায় লিপ্ত হয়। অভিযোগ সেই সাফাই কর্মীকে অশ্রাব্য ভাষায় গালি গালাজ করে এই ইঞ্জিনিয়ার। শেষ পর্যন্ত লাথি মেরে পুর নিগমের সাফাই কর্মীকে ড্রেনের মধ্যে ফেলে দেয় CWC-র ইঞ্জিনিয়ার বিহারের বাসিন্দা অমৃত পাত্র বলে অভিযোগ।
এর পরেই ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠে অন্য সাফাই কর্মীরা। তারা ছুটে যায়। খবর পেয়ে ছুটে যায় রামনগর ফাঁড়ির পুলিশ। পরে ফাঁড়িতে এসে CWC-র ইঞ্জিনিয়ার বিহারের বাসিন্দা অমৃত পাত্রের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে সাফাই কর্মীরা। একই সঙ্গে খবর পেয়ে ছুটে যায় আগরতলা পুর নিগমের ১৩ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলার। তিনি সাফাই কর্মীদের সঙ্গে কথা বলেন।
কাউন্সিলার জানান করোনার পরিস্থিতিতে সাফাই কর্মীরা কাজ করে চলেছে। কোন সাফাই কর্মী যদি ভুল করে থাকে তবে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। কিন্তু গায়ে হাত দেওয়ার মত ঘটনা বরদাস্ত করা হবে না। এই ক্ষেত্রে সাফাই কর্মীদের দাবি অনুযায়ী থানায় মামলা করা হয়েছে সেই ইঞ্জিনিয়ারের বিরুদ্ধে। অন্যদিকে অভিযুক্ত ইঞ্জিনিয়ার তার ভুল শিকার করেছেন।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্যসমূহ