About Me

header ads

ডাক্তার-স্বাস্থ্যকর্মীদের উপর হামলায় ৭ বছরের জেল, মোদী সরকারের নয়া অর্ডিন্যান্স!


ডেস্কও ব্যুরোঃ করোনা-যুদ্ধে স্বাস্থ্যকর্মীদের সুরক্ষার কথা মাথায় রেখে নতুন অর্ডিন্য়ান্স আনল মোদী সরকার। স্বাস্থ্যকর্মীদের উপর হামলা হলে, দোষ প্রমাণিত হলে শাস্তিস্বরূপ ৭ বছরের জেল হতে পারে। জেলের পাশাপাশি ৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত জরিমানাও হতে পারে। বুধবার অর্ডিন্য়ান্স আনার কথা ঘোষণা করতে গিয়ে এমনটাই জানিয়েছেন কেন্দ্রীয় মন্ত্রী প্রকাশ জাভড়েকর।
এদিন, সাংবাদিক বৈঠকে প্রকাশ জাভড়েকর বলেন, "মহামারী থেকে দেশকে রক্ষা করছেন স্বাস্থ্যকর্মীরা। তাঁদের উপর কোনওরকম হেনস্থা বা হামলা বরদাস্ত করা হবে না। একটা অর্ডিন্য়ান্স আনা হয়েছে। রাষ্ট্রপতির অনুমোদনের পরই এটা বাস্তবায়িত করা হবে
এ প্রসঙ্গে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী আরও জানিয়েছেন, "অর্ডিন্য়ান্সে বলা হয়েছে, ৩০ দিনের মধ্য়ে তদন্ত শেষ করতে হবে। এক বছরের মধ্য়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত জানাতে হবে। শাস্তি হিসেবে ৩-৫ বছরের জেল হতে পারে। পাশাপাশি ৫ লক্ষ থেকে ২ লক্ষ টাকার মতো জরিমানা দিতে হতে পারে। গুরুতর ঘটনা ঘটলে, শাস্তি হিসেবে ৬-৭মাসের জেল ও এক লক্ষ থেকে ৫ লক্ষ টাকা পর্যন্ত জরিমানা হতে পারে
প্রকাশ জাভড়েকর আরও জানিয়েছেন, ডাক্তার, নার্স, প্যারামেডিক্য়াল কর্মী, আশা কর্মীরা এই আইনের আওতায় রয়েছেন
উল্লেখ্য, করোনা পরিস্থিতিতে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে ডাক্তার-নার্স ও স্বাস্থ্যকর্মীদের হেনস্থার অভিযোগ সামনে এসেছে। হাসপাতাল-ক্লিনিকে সাদা পোশাক পরে রয়েছেন যাঁরা, তাঁরা এখন আমাদের ভগবান। তাঁদের সম্মান করা উচিত। তাঁরা নিজেদের জীবনের ঝুঁকি নিয়ে আমাদের প্রাণ বাঁচাচ্ছেন, করোনা-যুদ্ধে কয়েকদিন আগে দেশবাসীর উদ্দেশে এ বার্তাই দিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। এমনকি, ডাক্তার-স্বাস্থ্যকর্মীদের সঙ্গে দুর্ব্য়বহার করলে যে কঠোর পদক্ষেপ করা হবে, সে বার্তাও দিয়েছিলেন মোদী।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য