About Me

header ads

নববর্ষে ফের জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেবেন দেশের প্রধানমন্ত্রী!


ডেস্কও ব্যুরোঃ নববর্ষের দিন সকাল ১০ টায় জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। প্রধানমন্ত্রীর দফতরের পক্ষ থেকে টুইটে এই ঘোষণা করা হয়েছে। করোনা মোকাবিলায় ২১ দিনের লকডাউনের মেয়াদ শেষ হচ্ছে আগামীকাল, মঙ্গলবার। মনে করা হচ্ছে ওই দিনই ভাষণে লকডাউন বৃদ্ধির বিষয়ে ঘোষণা করতে পারেন প্রধানমন্ত্রী।


ইতিমধ্যেই লকডাউন আরও দুসপ্তাহ বাড়ানোর ইঙ্গিত মিলেছে প্রধানমন্ত্রীর কথায়। গত শনিবার মুখ্যমন্ত্রীদের সঙ্গে মোদীর ভিডিও বৈঠকেও কেন্দ্র-রাজ্যগুলি একযোগে লকডাউন বৃদ্ধির পক্ষেই সওয়াল করেছিল। অরবিন্দ কেজরিওয়াল, মমতা বন্দ্যোপাধায, ইয়েদুরাপ্পা জানিয়েছেন লকডাউনের মেয়াদ বাড়বে। তবে, বর্ধিত লকডাউনের গাইডলাই সমন্ধে এখনও নীরব কেন্দ্র। মনে করা হচ্ছে মঙ্গলবারই আনুষ্ঠানিকভা তা জানাবেন মোদী।
বৈঠকে কেন্দ্রের কাছে বর্ধিত লকডাউনে কৃষি, শিল্পের বেশ কিছু ক্ষেত্রকে ছাড় দেওয়ার আর্জি জানিয়েছে রাজ্যগুলো। নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যের যোগান সচল রাখতে সেই ছাড়ে সহমত মোদী সরকার। তবে, কোন কৌশলে সেই ছাড় দেওয়া হবে? করোনা মুক্ত এলাকায় লকডাউন শিথিল হলে করোনা সংক্রমণ বৃদ্ধির আশঙ্কা কতটা? গাইড লাইনে কি কি রাখা হবে? আপাতত এইসব প্রশ্নেই কেন্দ্রের বিবেচনাধীন।
করোনা নিয়ে এর আগে দুবার জাতির উদ্দেশে ভাষণ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। প্রথমবার জনতা কার্ফু ও দ্বিতীয়বার দেশব্যাপী ২১ দিনের লকডাউনের ঘোষণা করেছিলেন তিনি। মাঝে ভিডিও বার্তায় পারস্পারিক সংহতির প্রকাশ হিসাবে প্রদীপ প্রজ্জ্বলনের আবেদন জানিয়েছিলেন। মঙ্গলবার ফের এক জাতির উদ্দেশে বক্তব্য পেশে লকডাউনের মেয়াদ বৃদ্ধি ছাড়াও আর কী কী বিষয় উঠে আসে তা ঘিরেই কৌতুহল দানা বাঁধছে।
এখনও পর্যন্ত দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্য়া নহাজার পেরিয়ে গিয়েছে। মৃত্যু হয়েছে ৩০৮ জনের। ভাইরাস রোধে আগামী দুসপ্তাহ অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ বলে জানিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী। ব্যাপকহারে করোনা পরীক্ষার উপর জোর দেওয়া হয়েছে। তবে, এখনও পর্যন্ত ভারতে করোনাভাইরাসের গোষ্ঠীসংক্রমণ হয়নি বলেই জানাচ্ছে স্বাস্থ্যমন্ত্রক।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য