About Me

header ads

করোনা সংক্রমণ রোধে কেন্দ্রের নজরে ‘আগ্রা মডেল’ শাটডাউন!


ডেস্কও ব্যুরোঃ স্থানীয়ভাবে করোনা সংক্রমণ রোধে আগ্রা মডেলকেই তুলে ধরছে  মোদী সরকার। ভাইরাস মোকাবিলায় আগ্রাকে এখন নিরাপত্তা বেষ্টনীতে মুড়ে ফেলা হয়েছে। তৈরি হয়েছে কন্ট্রোল রুম, আক্রান্তদের চিহ্নিত করে সেইসব এলাকা সিল করে চলছে স্ক্রিনিং এবং র‍্যাপিড পরীক্ষা। এছাড়া, মানুষের সুবিধার কথা মাথায় রেখে তৈরি হয়েছে স্পেশাল ম্যানেজমেন্ট টিম। এই টিমের সদস্যরাই স্থানীয়দের হাতে নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিস পৌঁছে দিচ্ছেন। শনিবার করোনা সংক্রান্ত স্বাস্থ্যমন্ত্রকের ব্রিফিংয়েও আগ্রার এই করোনা নিয়ন্ত্রণ পদ্ধতির কথা তুলে ধরা হয়। স্থানীয় সংক্রমণ বিস্তার বন্ধ করতে বিভিন্ন রাজ্যকে এই মডেল মেনে চলার আবেদন করেন মন্ত্রকের যুগ্ম সচিব লভ আগারওয়াল।

কী এই আগ্রা মডেল’!
ইন্টিগ্রেটেড ডিজিজ সার্ভিল্যান্স প্রোগ্রামের সাথে যুক্ত এক প্রবীণ আধিকারিক জানান, করোনা আক্রান্তের খবর জানতে পেরেই প্রশাসন সক্রিয় হয়। আক্রান্তদের চিহ্নিত করে তাদের বাড়ির চারপাশের ৩ কিলোমিটার পর্যন্ত সিল করে দেওয়া হয়। দুজন সদস্যের সমন্বয়ে ২৫৯ দল গঠন করা হয়েছিল। পরবর্তী করয়েকদিনের মধ্যেই ১ লাখ ৬৩ হাজার মানুষের কাছে পৌঁছে যায় ওই দল। এস এন মেডিক্যাল কলেজে প্রায় হাজার জনের নমুনা পরীক্ষা হয়। ঘরবন্দি পরিবারগুলোর কাছে নিরাপত্তা বাহিনীর সহায়তায় নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিস পৌঁছে দেওয়া হত। সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখার ফলে ভাইরাস ছড়ানো রোধ করা সম্ভব হয়।

কোভিড-১৯ মোকাবিলায় আগামী দুসপ্তাহ লকডাউনের পথে কেন্দ্র। দেশজুড়ে বেশ কয়েকটি জায়গাকে হটস্পট চিহ্নিত করা হয়েছে। ওই সব জায়গায় আগ্রা মডেল প্রয়োগের পক্ষপাতী কেন্দ্র। অর্থাৎ, এলাকা সিল করে সামাজিক দূরত্ব বাড়ানো ও ব়্যানডাম পরীক্ষা করে করোনা নির্মূল করতে উদ্যোগী প্রশাসন। এক্ষেত্রে পাঁচ কিলোমিটার পর্যন্ত বাফার এলাকা রাখারও পরামর্শ দেওয়া হয়েছে। অর্থাৎ প্রয়োজন ছাড়া হটস্পটের তিন কিলোমমিটারের বাইরে পাঁচ কিমি পর্যন্ত কাউকে প্রবেশ করতে দেওয়া হবে না।এতদিন সংক্রমণ রোধে রাজস্থানের ভিলওয়ারা মডেলই ছিল কেন্দ্রীয় মডেল। দেশের প্রথম দশটি করোনা হটস্পটের অন্যতম ছিল এই ভিলওয়ারা। এখানে ত্রিমুখী নিয়ন্ত্রণ নীতি প্রয়োগের ফলে সুফল পাওয়া গিয়েছে। জেলাটিকে বিচ্ছিন্ন করা, নগর ও গ্রামীণ এলাকায় কড়া স্ক্রিনিং নীতি চালু করা এবং গ্রামাঞ্চলে সমীক্ষা ও পরীক্ষা চালানোর পরে কোয়ারেন্টাইন ও আইসোলেশন ওয়ার্ড তৈরি করে তাতে আক্রান্তদের সীমাবদ্ধ করা। এই সাফল্যের কারণেই সরকার ওই নিয়ন্ত্রণ প্রক্রিয়ার নামকরণ করে ভিলওয়ারা মডেল।
দেশের পর্যটনের অন্যতম শহর তাজমহল খ্যাত আগ্রা। দুই অস্ট্রেলিয়র সঙ্গে ঘোরাফেরায় ফলে দিল্লির ময়ুরভঞ্জের দুজন করোনা সংক্রমণের শিকার হন। পরে তারা আগ্রায় নিজেদের বাড়ি ফিরে আসেন। এরপরই আগ্রা শহরে করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ে। রাতারাতি আক্রান্ত হন ৬ জন।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য