About Me

header ads

বোর্ডের নিষিদ্ধ ক্রিকেটারই খেললেন আইপিএলে! প্রকাশ্যে আসতেই শুরু হইচই!

বিসিসিআইয়ের তরফে নিষিদ্ধ হলেন। আবার আইপিএলেও খেললেন। এমনই অদ্ভূত কাণ্ডে এবার শোরগোল ভারতীয় ক্রিকেটের অন্দরমহলে। ৪৮ ঘণ্টা আগেই নিষিদ্ধ বস্তু সেবনের দায়ে ক্রিকেট থেকে নির্বাসিত হয়েছেন মুম্বইয়ের তারকা ক্রিকেটার পৃথ্বী শ, তারপরেই শুরু একের পর এক বিতর্ক। কেন্দ্রীয় ক্রীড়ামন্ত্রক কড়া ভাষায় চিঠি পাঠিয়ে জানিয়ে দিয়েছে, ডোপিং পরীক্ষা করার কোনও এক্তিয়ারই নেই বোর্ডের। ক্রিকেটারদের শাস্তি দেওয়া তো দূর কথা!

এর মধ্যেই বিতর্ক উসকে দিলেন এক বিসিসিআই কর্তা। তিনি আবার প্রশ্ন তুলেছেন পৃথ্বী-র নির্বাসনের মেয়াদকালের নিয়েই। মঙ্গলবার বোর্ডের তরফে জানানো হয়েছে, ডোপ টেস্টে পৃথ্বী শ-এর নমুনার মধ্যে নিষিদ্ধ বস্তু টার্বুটালাইন পাওয়া গিয়েছে। যা ওয়াডার নিষিদ্ধ তালিকাভুক্ত। সেই হিসেবে আট মাস নির্বাসনে পাঠানো হয়েছে তাঁকে। নির্বাসনের মেয়াদকাল শুরু হয়েছে, মার্চ মাসের ১৬ তারিখ থেকে। শেষ হবে ১৫ নভেম্বর। ঘটনাচক্রে, যে সময়ে পৃথ্বী-র নির্বাসনকালের মেয়াদ শুরু হয়েছিল, সেই সময় পৃথ্বী বহাল তবিয়তে আইপিএলে খেলছেন।

বোর্ডের এই কর্তা এই বিষয়েই প্রশ্ন তুলে জানিয়েছেন, “বিসিসিআইয়ের নিয়ম অনুযায়ী, খেলায় মার্চ মাস থেকে ও নিষিদ্ধ। সেই নিষিদ্ধ হওয়ার সময়েও ও আইপিএল খেলেছে। যদিও এটা শর্তসাপেক্ষে অনুমোদন দেওয়া হয়, তাহলেও এটা গ্রহণযোগ্য নয়।”পাশাপাশি, পৃথ্বী শ-কেও একহাত নিয়েছেন বোর্ডের সেই কর্তা। সংবাদসংস্থাকে তিনি জানিয়েছেন, এটা ভীষণ অস্বস্তিকর বিষয় যে টিম ইন্ডিয়ার একজন ক্রিকেটার কোনও ওষুধ খাওয়ার সেবন করার পূর্বে ঠিকভাবে যাচাই করে দেখেছি কোনও উপাদান নিষিদ্ধ তালিকায় রয়েছে কিনা!

Post a Comment

0 Comments