About Me

header ads

রাষ্ট্রপুঞ্জের রিপোর্ট ‘মিথ্যে’, অভিযোগ কেন্দ্রের!

জম্মু কাশ্মীরে সেনা বাহিনীর অত্যাচার নিয়ে রিপোর্ট প্রকাশ করেছিল রাষ্ট্রপুঞ্জের মানবাধিকার শাখা। সোমবার কূটনৈতিক স্তরে সেই রিপোর্টের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানালো ভারত। বিদেশমন্ত্রক থেকে জানানো হয়েছে রাষ্ট্রপুঞ্জের রিপোর্ট ‘মিথ্যে’।
 
বিদেশমন্ত্রক সচিব রভিশ কুমার বলেছেন, ‘‘জম্মু-কাশ্মীর নিয়ে আগের রিপোর্টটি উদ্দেশ্যপ্রণোদিত, এবং মিথ্যে ছিল। নতুন রিপোর্টেও সেই ধারাবাহিকতাই বজায় থাকল। রিপোর্টে যা বলা হয়েছে, তা ভারতের সার্বভৌমত্ব এবং আঞ্চলিক অখণ্ডতার বিরোধী। সীমান্ত সন্ত্রাসের মতো গুরুত্বপূর্ণ সমস্যার কোনও উল্লেখই নেই তাতে।’’
 
রভিশ কুমার আরও বলেন, ‘‘এত বছর ধরে সীমান্তে সন্ত্রাস চালিয়ে আসছে পাকিস্তান। কত মানুষের প্রাণ গিয়েছে, তার কোনও হিসাবই নেই ওই রিপোর্টে। বরং বিশ্বের বৃহত্তম গণতন্ত্রের সঙ্গে সন্ত্রাসবাদে মদত দেওয়া একটি দেশকে এক আসনে বসানোর চেষ্টা করা হয়েছে। মানবাধিকার শাখার হাই কমিশনে এর বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানিয়েছি আমরা।’’
 
২০১৮ সালের জুন মাসে কাশ্মীরে সেনার ভূমিকা নিয়ে প্রথম রিপোর্টটি প্রকাশ করে রাষ্ট্রপুঞ্জের মানবাধিকার শাখা। তার সাম্প্রতিক সংস্করণে ভারত এবং পাকিস্তান, দুই দেশেরই তীব্র সমালোচনা করা হয়। বলা হয়, ‘‘দুই দেশই কাশ্মীরের উপর নিজেদের কর্তৃত্ব দাবি করেছে দুই দেশই। কয়েক দশক ধরে সেখানে লড়াই চালিয়ে যাচ্ছে বিচ্ছিন্নতাবাদী সংগঠনগুলি। ভারতের হাত থেকে স্বাধীনতার দাবি করে আসছে তারা। আবার দাবি উঠছে পাকিস্তানের সঙ্গে মিশে যাওয়ারও।’’

Post a Comment

0 Comments