About Me

header ads

গোরু চোর সন্দেহে তিনজনকে পিটিয়ে খুন বিক্ষুব্ধ জনতার!

ফের একবার গোরক্ষকদের নিজ হাতে আইন তুলে নেওয়ার ঘটনা ঘটল দেশে। গোরু চোর সন্দেহে তিন ব্যাক্তিকে পিটিয়ে মেরে ফেলল বিক্ষুব্ধ জনতা। শুক্রবার ভোরে ঘটনাটি ঘটেছে বিহারের সারণ গ্রামে। নিহতদের দেহ ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। ঘটনার পরিপ্রেক্ষিতে তদন্ত শুরু হয়েছে ইতিমধ্যে।

বিহারের সারণের পয়গম্বরপুর গ্রামে বেনিয়াপুর থানা এলাকার ঘটনা। সংবাদসংস্থা পিটিআই-কে পুলিশ জানিয়েছে, “তিন ব্যাক্তির বিরুদ্ধে গোরু চুরির অভিযোগে রুষ্ট জনতা তাঁদেরকে পিটিয়ে মেরে ফেলে শুক্রবার সকালে।

নিহতরা হলেন রাজু নট, নৌসাদ কুরেশি, বিদেশ নট, জানিয়েছেন পুলিশের এসপি হরকিশোর রাই। তিনি আরও জানিয়েছেন, “নিহতদের মধ্যে দু’জনের জনতার হাতে মার খেয়েই মৃত্যু হয়। বাকি একজন গুরুতর আহত ছিলেন। হাসপাতাল নিয়ে গেলে মৃত বলে ঘোষণা করা হয় তাঁকে। নিহতদের মধ্যে দু’জন নট সম্প্রদায়ভুক্ত।

প্রসঙ্গত, সারণের সাংসদ হলেন বিজেপি নেতা রাজিব প্রতাপ রুডি। বিজেপির জমানাতেই রাজনীতিতে নির্ণায়ক ভূমিকা নিতে শুরু করেছে গো রাজনীতি। এই ঘটনাতেও গৈরিকীকরণের ছায়া দেখছেন অনেকেই।
 
স্থানীয়দের অবশ্য অভিযোগ বিগত বেশ কিছু দিন ধরে গো হত্যার ঘটনা ঘটছিল ওই অঞ্চলে। এসপি জানিয়েছেন, “আমরা স্থানীয়দের সঙ্গে কথা বলার চেষ্টা করছি। প্রাথমিক ভাবে মনে করা হচ্ছে, এটি গোহত্যার ঘটনা। জনতা রুষ্ট হয়ে আইন নিজের হাতে তুলে নিয়েছেন।

স্বঘোষিত গোরক্ষকদের আইন হাতে তুলে নেওয়ার ঘটনা অবশ্য নতুন নয়। উত্তরপ্রদেশের বুলন্দশহরে গোহত্যা ঘিরে উত্তাল হয়েছিল রাজনৈতিক মহল। গোহত্যার অভিযোগে গত ৩ ডিসেম্বর বুলন্দশহরে হিংসায় পুলিশ আধিকারিক সুবোধ কুমার সিং ও সুমিত কুমার নামে স্থানীয় এক যুবককে হত্যা করার অভিযোগ ওঠে।

Post a Comment

0 Comments