About Me

header ads

নদী গুলির নাব্যতা বাড়াতে উদ্যোগী রাজ্য সরকার: আশিস সাহা!

 
রাজ্যের নদীগুলি ভয়াবহ দূষণের কবলে রয়েছে।এই দূষণের মাত্রা এতটাই বেশী যে তা নিয়ে উদ্বিগ্ন জল বিশেষজ্ঞরা। রাজ্যে সদ্যসমাপ্ত জল প্রবাহিকা নিয়ে জাতীয় স্তরের এক আলোচনা সভায় এই উষ্মা প্রকাশ করেছেন জল পুরুষ ডক্টর রাজেন্দ্র সিং। এই বিষয়ে পদক্ষেপ নিতে রাজ্য সরকারের সাথে কথাও বলেন তিনি।

একদিকে জলস্তর কমছে। দেশজুড়ে দেখা দিচ্ছে জল সংকট। এই অবস্থায় রাজ্যে বর্ষার অনুপাত অন্যান্য অঞ্চল থেকে অনেক বেশি। এর পরেও এই ভয়ানক দূষণের কবলে থাকা নদী গুলিকে বাঁচাতে ইতিমধ্যেই একগুচ্ছ পরিকল্পনা নিয়েছে রাজ্য সরকার। বিশেষত আগরতলা শহর নির্ভরশীল হাওড়া নদীর উপর। এই হাওড়া নদীর জল শহরের বিভিন্ন এলাকায় পরিশোধনের মাধ্যমে সরবরাহ করা হয়। কিন্তু বিগত দিনে হাওড়া নদীর যথাযথ সংরক্ষণ ও দূষণ রোধ করার ক্ষেত্রে কোন সঠিক পদক্ষেপ না থাকায় করুণ অবস্থা হাওড়ার। নদীর বিভিন্ন স্থানে মিশছে নোংরা জল। এছাড়া নদীর অববাহিকা ক্রমশ সংকুচিত হচ্ছে। ফলে স্বাভাবিক গতি হারাচ্ছে হাওড়া। বর্ষার সময় ভয়াবহ আকার ধারণ করে। প্লাবিত হয় দুই ধার। একই ঘটনার পুনরাবৃত্তি ঘটলেও পূর্বতন সরকার সঠিক কোন দিশা দেখাতে পারেনি। যে কারণে মৃতপ্রায় হাওড়া পুনরুদ্ধারে উদ্যোগী হয়েছে বর্তমান সরকার। এই হাওড়া নিয়ে চিন্তিত বিশেষজ্ঞরা।

এই বিষয়ে বিধায়ক আশিস সাহা জানান একসময় নদী কমিশন বা ব্রহ্মপুত্র রিভার কমিশন ছিল। এই নিয়ে বিধানসভায়ও কথা বলা হয়েছে। এই বিষয়ে প্রাধান্য দিয়ে সরকার যাতে পদক্ষেপ নেয় সেই বিষয়ে বক্তব্য ছিল। নতুন সরকার নদীগুলোর নাব্যতা বাড়ানোর জন্য নদী গুলি কে ব্যবহার করে,নদীর উপযোগিতা তুলে ধরার জন্য প্রয়াস নিয়েছে। দূষণমুক্ত জল নদীতে প্রবাহিত হবে এই আশা ব্যক্ত করেন তিনি। সমস্ত দূষণকে রোধ করে আগামী দিনগুলোতে যাতে নদীর জল মানুষ পায় তার উদ্যোগ অব্যাহত থাকবে।

এই উদ্যোগ কার্যকর ভূমিকা নিলে হাওড়া নদী দূষণমুক্ত হবে বলে আশা ব্যক্ত করেন বিধায়ক আশিস সাহা।শহর লাগোয়া হাওড়া নদীর উপর নির্ভরশীল শহরের মানুষ। এই ক্ষেত্রে সরকারি উদ্যোগ আগামী দিনে সদর্থক ভূমিকা নেবে। রুগ্ন প্রায় হাওড়া কে বাঁচাতে এটাই অভিমত বিশেষজ্ঞদের।

Post a Comment

0 Comments