About Me

header ads

কাশ্মীরে সেনাবাহিনীর উপর হামলা চালিয়ে যাওয়ার ডাক আল কায়দা প্রধানের!

ভারতীয় সেনাবাহিনী ও সরকারের উপর নিরন্তর আক্রমণ চালিয়ে যেতে হবে। কাশ্মীরের জঙ্গি গোষ্ঠীগুলির কাছে এই বার্তা দিল আল কায়দা প্রধান আয়মান আল-জাওয়াহারি। এর ফলে দেশের অর্থনীতি রক্তাক্ত হবে এবং দেশ ভুগতে থাকবে। এ ভিডিও বার্তার কথা জানিয়েছে সংবাদসংস্থা পিটিআই।

ওসামা বিন লাদেনের মৃত্যুর পর এখন আল কায়দার দায়িত্বে রয়েছেন জাওয়াহারি। তিনি বলেন, “আমার মতে কাশ্মীরের মুজাহিদিনদের এখন অন্তত ভারতীয় একটাই লক্ষ্য হওয়া উচিত। ভারতীয় সেনা ও সরকারের উপর নিরন্তর আক্রমণ যাওয়া, যাতে ভারতীয় অর্থনীতি রক্তাক্ত হয়ে পড়ে এবং ভারতের লোকবল ও সামগ্রীর ক্ষতি হতে থাকে।”

পিটিআই এ ব্যাপারে সরকারি আধিকারিকদের উদ্ধৃত করেছে। তাঁদের মতে নিরাপত্তা সংস্থা এই ভিডিও পরীক্ষা করেছে। তাঁরা মনে করছেন উপত্যকার বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়া জঙ্গিদের একত্রিত করার উদ্দেশ্যেই এই ভিডিও।

আল কায়দার নিজস্ব চ্যানেল আস সাহাবে এই ভিডিও পোস্ট করা হয়েছে। ভিডিও-তে সারা বিশ্বের মুসলিম জনতার সঙ্গে যোগাযোগের আরও শক্তিশালী মাধ্যম স্থাপন করতে বলা হয়েছে সন্ত্রাসবাদীদের।

ভিডিওটিতে জাওয়াহারি যখন কাশ্মীর নিয়ে কথা বলছেন, তখন পর্দায় জাকির মুসার ছবি ভেসে উঠতে দেখা যাচ্ছে। গত মে মাসে কাশ্মীরে নিরাপত্তা বাহিনীর হাতে খুন হয় মুসা। মুসা ছিল আল কায়দার ভারতীয় সেলের প্রতিষ্ঠাতা। এই সেলের নাম আনসার গাজওয়াত-উল-হিন্দ।

আল কায়দা প্রধান সন্ত্রাসবাদীদের পাকিস্তানের ফাঁদে পড়তে নিষেধ করেছেন। তাঁর মতে পাকিস্তান এখন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের হাতের পুতুল।

জাওয়াহারির মতে “পাক সেনা ও সরকার এখন মুজাহিদিনদের নির্দিষ্ট রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে ব্যবহার করতে চায়, পরে তাদের হয় ছুড়ে ফেলে দেবে, নয়ত নিগ্রহ করবে।”

কাশ্মীরের লড়াইকে কোনও বিচ্ছিন্ন লড়াই হিসেবে দেখতে নারাজ জাওয়াহারি। তাঁর কাছে এই যুদ্ধ বিশ্বব্যাপী মুসলিম সম্প্রদায়ের জিহাদের অন্তর্ভুক্ত।

পাকিস্তানের গুপ্তচর সংস্থাকে হুঁশিয়ারি দিয়ে জাওয়াহারি বলেছেন তারা এখন পাকিস্তানে আমেরিকারই প্রাথমিক শক্তি।

Post a Comment

0 Comments