About Me

header ads

‘বন্দে মাতরম’ ইসলামবিরোধী, সাংসদের মন্তব্যে উত্তাল লোকসভা!

‘বন্দে মাতরম’ স্লোগানকে ইসলামবিরোধী বলে চিহ্নিত করলেন সমাজবাদী পার্টির এক সাংসদ। সেই মন্তব্যকে কেন্দ্র করে দিনভর বিতর্ক, প্রতিবাদে উত্তাল হল লোকসভা।

নবনির্বাচিত সাংসদদের শপথগ্রহণ অনুষ্ঠানের দ্বিতীয় দিনও সংসদের নিম্মকক্ষে ‘ভারত মাতা কী জয়’, ‘বন্দে মাতরম’ স্লোগান তুলছিলেন বিজেপির সাংসদেরা। এর মধ্যেই শপথ নিতে আসেন সমাজবাদী পার্টির সাংসদ শফিকুর রহমান বার্ক। শপথগ্রহণের পর তিনি ‘ভারতের সংবিধান জিন্দাবাদ’ বলে স্লোগান দেন। এরপর কেন ‘বন্দে মাতরম’ স্লোগান তাঁর ধর্মের বিরোধী, তা ব্যাখ্যা করেন তিনি। সমাজবাদী পার্টির সাংসদের ওই মন্তব্যের পর ক্ষোভে ফেটে পড়েন বিজেপি সাংসদেরা। তাঁরা ‘বন্দে মাতরম’ ও ‘জয় শ্রীরাম’ স্লোগান দিতে থাকেন।

আইমিম নেতা আসাদুদ্দিন ওয়েইসির শপথগ্রহণের সময়ও বিজেপির সাংসদেরা একই স্লোগান দিতে দেখা যায়। আইমিম নেতা হাতের ইঙ্গিতে তাঁদের আরও জোরে চিৎকার করতে বলেন। শপথগ্রহণের শেষে ওয়েইসি স্লোগান দেন- ‘জয় ভীম, তকবির, আল্লাহু আকবর, জয় হিন্দ।’

২০১৩ সালে বার্ক বিএসপি-র টিকিটে উত্তরপ্রদেশের সাম্ভি থেকে জয়ী হয়েছিলেন। সে সময়ও সংসদে ‘বন্দে মাতরম’ স্লোগান ওঠায় তিনি ওয়াকআউট করেন। প্রসঙ্গত, ‘বন্দে মাতরমে’র তৃতীয় ও চতুর্থ স্তবকে ভারতের সঙ্গে হিন্দু দেবী দুর্গা ও লক্ষীর তুলনা করায় কিছু ইসলামপন্থী গোষ্ঠী গানটির বিরোধিতা করে।

বিজেপি সাংসদ সাক্ষী মহারাজ শপথ নিয়েছেন সংস্কৃতে। তাঁর শপথগ্রহণের সময় স্লোগান ওঠে- ‘মন্দি ওঁহি বনায়েঙ্গে।’

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য