About Me

header ads

হাজিরা দিতেই হবে প্রজ্ঞা ঠাকুরকে জানাল আদালত!

বৃহস্পতিবার ভোপালের বিজেপি সাংসদ প্রজ্ঞা ঠাকুরের আদালতে সপ্তাহে অন্তত একবার হাজিরা দেওয়া থেকে রেহাইয়ের আবেদন খারিজ করে দিয়েছে মুম্বইয়ের বিশেষ এনআইএ আদালত। ২০০৮ সালের মালেগাঁঁও বিস্ফোরণ মামলায় এই সাপ্তাহিক হাজিরা দিতে বলা হয়েছিল প্রজ্ঞা ঠাকুরকে।

এই মামলায় অন্যতম প্রধান অভিযুক্ত প্রজ্ঞা ঠাকুর ভগ্নস্বাস্থ্য, দূরত্ব, নিরাপত্তা, সংসদে উপস্থিতি, এবং ‘সাধ্বী’ হিসেবে তাঁর প্রাত্যহিক জীবনের নিদর্শন দেখিয়ে আবেদন করেন, তাঁকে যেন সাপ্তাহিক হাজিরা থেকে অব্যাহতি দেওয়া হয়। আজ তাঁর হাজির থাকার কথা ছিল, কিন্তু আজকের মতো তাঁকে রেহাই দিয়েছে আদালত।

প্রজ্ঞা ঠাকুরের আইনজীবীরা জানান, তাঁকে দলীয় হুইপ মেনে কিছুটা সময় সংসদে উপস্থিত থাকতেই হবে। জবাবে আদালত বলে, পার্টির কথা মেনে সংসদে হাজির থাকা অবশ্যই জরুরি, কিন্তু এই বিষয়ে কোনো নথিপত্র জমা করা হয় নি।

গত সপ্তাহে প্রজ্ঞা ঠাকুরকে শনিবার হাজিরা দিতে হবে না বলে জানায় আদালত। তাঁর আইনজীবীরা একটি আবেদন করে বলেন, তিনি হাজিরা দিতে ইচ্ছুক ছিলেন, কিন্তু বিচারপতি ছুটিতে থাকায় তাঁরাই প্রজ্ঞাকে নিরস্ত করেন।

মে মাসে ওই বিশেষ আদালত নির্দেশ দেয়, মামলায় প্রধান অভিযুক্তরা সপ্তাহে যেন অন্তত একবার আদালতে উপস্থিত হন।

ডিসেম্বরে মামলা শুরু হওয়ার পর এমাসের গোড়ার দিকে প্রথমবার আদালতে হাজির হন প্রজ্ঞা। যে দুুুটি প্রশ্ন তাঁকে করা হয়, সেগুলির একটিই উত্তর দেন তিনি: “আমি জানি না।” শুনানি চলাকালীন বেশিরভাগ সময়টা দাঁড়িয়ে কাটান তিনি, বসার ব্যবস্থা এবং আদালতের পরিচ্ছন্নতা নিয়ে অভিযোগ করেন, এবং জানতে চান, তাঁকে আদৌ কেন তলব করা হয়েছে।

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

0 মন্তব্য