About Me

header ads

বিরোধীরা জঙ্গিদের বিরিয়ানি খাওয়াতেন, আমরা বুলেট খাওয়াই!

বালাকোটে ভারতীয় সেনাবাহিনী আদৌ হামলা এয়ার স্ট্রাইক করেছে কিনা, এবং ৩০০ জন জঙ্গির আদৌ মৃত্যু হয়েছে কি না, তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন বিদেশ কংগ্রেস সভাপতি স্যাম পিত্রোদা। রবিবার উত্তরপ্রদেশের লোকসভা নির্বাচনের প্রচারে নেমেই পিত্রোদাকে এক হাত নিলেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ।

সাহারানপুরের সভায় আদিত্যনাথ বলেন, “কংগ্রেসে একজন মহাগুরু রয়েছেন। তার নাম স্যাম পিত্রোদা। দেশের ‘লজ্জা’ তিনি। ভারতীয় সেনাবাহিনীর বীরত্ব নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন”।

রাহুল গান্ধীকে লক্ষ করে উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী বলেন, “অর্থ মন্ত্রী বলেছিলেন সংসদে একজন মগজহীন ব্যক্তি রয়েছেন, আপনারা নিশ্চয়ই সবাই বুঝতে পারছেন, ব্যক্তিটি কে”। “আমি শুনতে পাচ্ছি, কারা যেন সংসদে বলে বেড়াচ্ছে, ক্ষমতায় এলে দেড় ফুটের আলু ফলাবে”।

জন সমাবেশের আগে আদিত্যনাথ শকুম্ভারী মন্দির দর্শন করেছেন। আগামী ২৬ মার্চ থেকে দেশ জুড়ে ৪০টি জনসভা করার পরিকল্পনা রয়েছে বিজেপির।

সন্ত্রাসবাদ নিয়ে কংগ্রেসের দৃষ্টিভঙ্গির তীব্র সমালোচনা করে আদিত্যনাথ বলেন, “বিরোধীরা বিরিয়ানি খাওয়াতেন জঙ্গিদের, সেখানে বিজেপিরা বুলেট আর বোমা খাওয়ায়”।

ওসামা বিন লাদেনের মতোই পরিণাম হবে জৈশ-ই-মহম্মদ প্রধান মাসুদ আজহারের, বিশ্বাস করেন আদিত্যনাথ।

সাহারানপুরের বিএসপি নেতা ইমরান মাসুদকে জৈশ প্রধানের জামাই হিসেবেও সম্বোধন করলেন উত্তরপ্রদেশের বিজেপি মুখ্যমন্ত্রী। বললেন, “মাসুদের জামাই সাহারানপুরে এসে ওই ভাষাতেই কথা বলে। মাসুদের ভাষায় কথা বলা কারোর কি সাহারানপুর থেকে জেতা উচিত”?